শুক্রবার , জুন ১৮ ২০২১
Home / গ্রাম বাংলা / রাজারহাটের পাংঙ্গা মীরেরবাড়ি ব্রীজটি পুর্বের জায়গায় নির্মাণের দাবি এলাকাবাসীর

রাজারহাটের পাংঙ্গা মীরেরবাড়ি ব্রীজটি পুর্বের জায়গায় নির্মাণের দাবি এলাকাবাসীর

আনোয়ার হোসেন: সংবাদ চ‍্যানেল প্রতিনিধি 



কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার ছিনাই ইউনিয়নের ১নং ওয়াডের পাংগা মিরের বাড়ির এলাকায় পুরাতন ব্রিজ ভেঙ্গে নতুন ব্রিজের কাজ চলছে, । কিন্তু নিয়মনিতি অমান্য করে ঠিকাদার নতুন ব্রিজের কাজ করছে। নেই কোন ব্রিজ নিরমানের প্রকল্প সাইনবোড। এছাড়া পুরাতন ব্রিজের নকশা পরিবর্তন করে ব্রীজের কাজ করছে,। নতুন ব্রিজটি  যেখানে নির্মাণ হচ্ছে  বর্ষা মৌসুমে ব্রিজ দিয়ে পানি প্রভাহিত হতে সমস্যার সৃষ্টি হবে। এতেকরে নির্ধারিত কেনেল দিয়ে পানি প্রবাহিত না হলে,পানির স্রোতে নতুন করে  কয়েকটি বাড়িসহ কৃৃষিজমি নষ্ট হয়ে যাবে ।এই কারণে এলাকাবাসী আফজাল হোসেনের ছেলে মাহাবুব হোসেন, মৃত:গনিমামুদের ছেলে রুহুলআমিন, মৃত কেচুমামুদের ছেলে সকেন্দার আলী ছামছুল হকের আশরাফুল সংবাদ চ্যানেলের প্রতিনিধিকে বলেন ব্রিজটি পূর্বে যে স্থানে ছিল, নতুন ব্রিজটি সেই স্থানে নির্মান করা হোক।,এই নিয়ে অত্র ইউনিয়নের ১নং ওয়াডের ইউ পি সদস্য আরিফ এ প্রতিনিতিকে বলেন ,নতুন ব্রিজটি যেভাবে নির্মান হচ্ছে তা সঠিক নয়। ব্রিজটি পূর্বের স্হানে নির্মান করাটাই হবে উওম। তা না হলে কয়েকটি বসতবাড়ী সহ কৃষি জমি নষ্টো হয়ে যাবে,। এবিষয় উক্তএলাকায় সরজমিনে গিয়ে এলাকাবাসির সঙ্গে সংবাদ চ্যালেনের প্রতিনিধির সঙ্গে কথা হলে অনেকই বলেন ব্রিজটি পূর্বের স্থানে হওয়ার জন্য দাবি জানালে ঠিকাদারের লোক আতউর নামের ব্যাক্তি বিভিন্ন ভাবে ভয়ভিতি প্রদর্শন করে ।এলাকাবাসীর অভিযোগ ব্রিজ নির্মানের প্রধান রাজমিস্ত্রি এদশাদ তিনি প্রকৌশলি ও ঠিকাদারকে ভুলভাল তালবাহানা বুঝ দিয়ে ব্রিজটির কাজ সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে,। এলাকাবাসী আরো বলেন আমরা শুনেছি ব্রিজটি এল জি ই ডি অধিনে হচ্ছে ,ঠিকাদার সরকার দলীয় নেতা, তবে বর্তমান সরকার উন্নয়ের সরকার,, ঠিকাদার যেই হোকনা কেন নিয়ম মাফিক কাজ হোক।উল্লেখ্য প্রকৌশলি ও অত্র ইউনিয়নের চেয়ারম্যানর সঙ্গে মুটো ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করলে ফোন বন্ধ পাওয়া য়ায়।

About songbadchannel

Check Also

কুড়িগ্রাম ধরলা ব্রিজের নিচ থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার

শেখফরিদ সংবাদ চ্যানেল কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধি : শনিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী, ২০২১ কুড়িগ্রামে ধরলা ব্রীজের নিচ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.